মঙ্গলবার, ১৯-জুন ২০১৮, ১০:০০ অপরাহ্ন

পুঁজিবাজারে লেনদেন দরপতন

sheershanews24.com

প্রকাশ : ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ০৭:২৩ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, ঢাকা: টানা পঞ্চম কার্যদিবসে নিম্নমুখী ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সার্বিক মূল্য সূচক। এদিন ডিএসই’র সার্বিক লেনদেন ২০১৬ সালের পর সর্বনিম্নে নেমে এসেছে। দিনশেষে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে মাত্র ২৮৯ কোটি টাকা।
তবে এদিন চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের  (সিএসই) সার্বিক মূল্য সূচক কিছুটা বাড়লেও লেনদেন কমেছে।
ডিএসই ও সিএসই’র বাজার পর্যালোচনায় এসব তথ্য জানা গেছে।
বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও ফান্ডগুলোর মধ্যে দর বেড়েছে ১১৩টির, কমেছে ১৬১টির আর দর অপরিবর্তিত ছিল ৫৭টি প্রতিষ্ঠানের।
এ সময় ডিএসইতে ৭ কোটি ১ লাখ ২ হাজার ৩৯৩টি শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দিনশেষে ডিএসইতে ২৮৯ কোটি ৬৬ লাখ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে।
এরআগে গতবছরের ১১ জুলাই ডিএসইতে এক কম টাকার (২৭২ কোটি  ৭৫ লাখ) শেয়ার লেনদেন হয়েছিল।
এ সময় ডিএসই’র সার্বিক মূল্য সূচক আগের কার্যদিবসের তুলনায় ২.০৫ পয়েন্ট কমে ৫৯০৬.৯৪ পয়েন্টে স্থিতি পেয়েছে। শরীয়াহভিত্তিক কোম্পানিগুলোর মূল্য সূচক ৩.৯৩ পয়েন্ট ও ডিএস-৩০ সূচক ৩.০১ পয়েন্ট কমেছে।
লেনদেন শেষে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে স্কয়ার ফার্মা। এ সময় কোম্পানিটির ১৪ কোটি ২৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। টার্নওভারে দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল সিভিও পেট্রো, কোম্পানিটির ৯ কোটি ৩২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৯ কোটি ৩০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনের মধ্যে দিয়ে টার্নওভারের তৃতীয় অবস্থানে উঠে এসেছে গ্রামীণফোন।
টার্নওভার তালিকায় থাকা অন্যান্য কোম্পানিগুলো হলো- ইউনিক হোটেল, ফার্মা এইড, সিটি ব্যাংক, আলিফ ব্র্যাক ব্যাংক, আনোয়ার গ্যালভানাইজিং ও উসমানিয়া গ্লাস।
এদিকে, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) লেনদেন হওয়া ২১৮টি কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ৮১টির, কমেছে ১০২টির ও দর অপরিবর্তিত ছিল ৩৫টি প্রতিষ্ঠানের।
এ সময় সিএসইতে ২৩ কোটি ৬৬ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। দিনশেষে সিএসই’র সার্বিক মূল্য সূচক বেড়েছে ৪.০২ পয়েন্ট। এদিন সিএসইতে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে গ্রামীণফোন। কোম্পানিটির ১০ কোটি ৫৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে।
শীর্ষনিউজ/এমই